October 23, 2021, 12:18 pm
তাঁজাখবর
সাংবাদিক নাসির উদ্দীন বালীর মৃত্যুতে শোক সভা ও দোয়া মোনাজাত অনুষ্ঠিত প্রয়াণ দিবসে কবি জীবনানন্দ দাশকে নিয়ে বগুড়ায় আলোচনা চৌহালীতে খাষপুকুরিয়ার ইউপি নির্বাচনে নৌকা’র প্রতীক প্রত্যাশী মাসুম সিকদার আদমদীঘিতে রক্তদহ বিলে অভিযানঃ ২ হাজার মিটার ভাদাই জাল জব্দ সান্তাহারে ট্রেন থেকে চোলাই মদসহ গ্রেপ্তার ১ কাজিপুরে আওয়ামীলীগের উদ্যোগে জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ মিছিল দক্ষিণ বঙ্গের রাজনৈতিক অভিভাবক আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহ’র হাত ধরে দুর্বার গতিতে এগিয়ে যাচ্ছেন উজিরপুর উপজেলা চেয়ারম্যান নন্দীগ্রামে পুলিশের অভিযানে গ্রেপ্তার-৬ বাগমারায় দখলীয় নির্মাণাধীন ঘর জামাল ক্যাডার বাহিনী দ্বারা বিধ্বস্ত শাজাহানপুরে ইউপি নির্বাচনে নৌকা প্রতীকে মনোনয়ন পেলেন যারা

করোনায় জনসচেতনতা

সংবাদদাতার নাম:
  • প্রকাশিত: বৃহস্পতিবার, জুলাই ৩০, ২০২০
  • 61 দেখা হয়েছে:

)  

 

অনুপমা চক্রবর্তী অতিথিঃ

একসময় করোনার জন্য থমকে গিয়েছিল আমাদের সাধারণ জীবনযাপন। করোনা মহামারি আটকাতে পুরো বিশ্বে গ্রহণ করা হয়েছিল অনির্দিষ্টকালের জন্য লকডাউন ব্যবস্থা। বাংলাদেশে ও তার ব্যতিক্রম হয়নি। কিন্তু লকডাউন ব্যবস্থা গ্রহণ করা সত্ত্বেও আমরা করোনা মহামারী কি আটকাতে পারেছি?না পারিনি। তার একমাত্র কারণ আমাদের অসচেতনতা। লকডাউন পরিস্থিতিতেও আমরা দেখতে পেয়েছি মানুষের বিভিন্ন অসচেতন মূলক কার্যক্রম। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা কর্তৃক করোনা মহামারী রোধে আমাদের কিছু স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার পরামর্শ দেয়া হয়েছে।যেমনঃবাহিরে বের হওয়ার সময় তিন স্তরবিশিষ্ট মাস্ক পরিধান করতে হবে, হ্যান্ড গ্লাভস পরিধান করতে হবে, প্রতিটি মানুষের মাঝে কমপক্ষে তিন ফুট দূরত্ব বজায় রাখতে হবে এবং নির্দিষ্ট সময় পরপর 20 সেকেন্ড ধরে সাবান দিয়ে হাত ধুতে হবে ইত্যাদি।এরমধ্যে মাস্ক পরা আমাদের সবার জন্য বাধ্যতামূলক করা হয়েছে। যাতে করোনা সহজেই আমাদের শরীরে প্রবেশ করতে না পারে। কিন্তু কিছু লোক মাস্ক পড়তে অনীহা দেখাচ্ছেন। করোনা পরিস্থিতির আগে মানুষ যেভাবে জীবনযাপন করতো তারা এখনো ঠিক সেভাবেই তাদের জীবনযাপন করে যাচ্ছেন। এতে করে সংক্রমণের ঝুঁকি দিন দিন বেড়েই চলেছে। তারা কোন প্রকার স্বাস্থ্যবিধি মানতে রাজি না।তারা শুধু নিজে এবং নিজের পরিবার নয় বরং সমাজের জন্য ও ঝুঁকিপূর্ণ।

চলমান লকডাউন আমাদের জীবনকে স্থিতিশীল করে দিয়েছিল। কর্মসংস্থানের অভাব তৈরি হচ্ছিল এবং যারা দিন আনে দিন খায় তাদেরকে মারাত্মক ক্ষতির সম্মুখীন হতে হচ্ছিল।যানবাহন চলাচল থেকে শুরু করে প্রতিটি দোকান-পাঠ বন্ধ ছিলো। তাই জনজীবনকে সচল রাখতে স্বাস্থ্যবিধি

মানার পরামর্শ দিয়ে লকডাউন উঠিয়ে নেওয়া হয়েছে।অনেকেই স্বাস্থ্যবিধি গুলো কঠোর ভাবে মেনে চলছেন কিন্তু আমরা অনেক ক্ষেত্রেই দেখছি লোকজন স্বাস্থ্যবিধি না মেনেই চলাফেরা করছে।বলা চলে তারা খামখেয়ালি ভাবে চলাফেরা করছেন।কেউ হয়তো হাতে মাস্ক নিয়ে বা কেউ মুখ থেকে মাস্ক নামিয়ে চলাচল করছেন এবং কারো সাথে কথা বলার সময় কোনো দূরত্ব না রেখেই কথা চালিয়ে যাচ্ছেন।

 

আমরা দেখতে পাচ্ছি পুরো বিশ্বের বিজ্ঞানীরা ভ্যাকসিন আবিষ্কারে কাজ করে যাচ্ছেন। কিন্তু যতদিন না পর্যন্ত ভ্যাকসিন আবিষ্কার হচ্ছে ততদিন আমাদের প্রাণঘাতী করোনাভাইরাস এর সাথে লড়াই করে বাঁচতে হবে। কিন্তু আমরা যদি অসচেতন হই আমাদের সাথে সাথে অন্যান্যদেরও বিপদে ফেলতে পারি।আমরা সবাই যথাযথভাবে স্বাস্থ্যবিধি মেনে চলার চেষ্টা করব। স্বাস্থ্যবিধির যেসকল গাইডলাইন আছে সেগুলো মেনে চলব।ভিটামিন সি যুক্ত খাবার গ্রহণ করব। শিশুদের এবং বয়স্কদের প্রতি বিশেষ যত্ন রাখবো। কেননা শিশু ও বয়স্কদের ঝুঁকির সম্ভাবনা বেশি রয়েছে। অপ্রয়োজনে বাহিরে বের হব না।বাহিরে যাবার সময় নিজে মাস্ক পরবো এবং অন্যদের মাস্ক পরতে উদ্বুদ্ধ করবো। সকলকে একথা মনে রাখতে হবে যে, “আপনার স্বাস্থ্য আপনার হাতে”। আমার জন্য যেন পরিবারের অন্যান্যদের ঝুঁকির মুখে পড়তে না হয় সে ব্যাপারে সচেতন থাকবো।আমরা যদি স্বাস্থ্যবিধি গুলো মেনে চলি তাহলে আমরা করোনা প্রতিরোধ কররে সক্ষম হবো বলে আশা করতে পারি।যেহেতু সবার পক্ষে সবসময় ঘরে থাকা সম্ভব নয় এতে জীবন অচল হয়ে পড়বে। তাই স্বাস্থ্যবিধি মেনে আমাদের প্রতিদিনের কাজগুলো সম্পন্ন করতে হবে। এভাবে আমরা যদি সতর্ক হয়ে আমাদের কাজগুলো করি এতে করে আমরা যেমন আর্থিক ক্ষতির সম্মুখীন হব না তেমনি সংক্রমণের ঝুঁকি এড়াতে সক্ষম হব।

 

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরো সংবাদ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। © All rights reserved © 2020 ABCBanglaNews24
Theme By bogranewslive
themesba-lates1749691102