October 23, 2021, 11:49 am
তাঁজাখবর
সাংবাদিক নাসির উদ্দীন বালীর মৃত্যুতে শোক সভা ও দোয়া মোনাজাত অনুষ্ঠিত প্রয়াণ দিবসে কবি জীবনানন্দ দাশকে নিয়ে বগুড়ায় আলোচনা চৌহালীতে খাষপুকুরিয়ার ইউপি নির্বাচনে নৌকা’র প্রতীক প্রত্যাশী মাসুম সিকদার আদমদীঘিতে রক্তদহ বিলে অভিযানঃ ২ হাজার মিটার ভাদাই জাল জব্দ সান্তাহারে ট্রেন থেকে চোলাই মদসহ গ্রেপ্তার ১ কাজিপুরে আওয়ামীলীগের উদ্যোগে জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ মিছিল দক্ষিণ বঙ্গের রাজনৈতিক অভিভাবক আবুল হাসানাত আব্দুল্লাহ’র হাত ধরে দুর্বার গতিতে এগিয়ে যাচ্ছেন উজিরপুর উপজেলা চেয়ারম্যান নন্দীগ্রামে পুলিশের অভিযানে গ্রেপ্তার-৬ বাগমারায় দখলীয় নির্মাণাধীন ঘর জামাল ক্যাডার বাহিনী দ্বারা বিধ্বস্ত শাজাহানপুরে ইউপি নির্বাচনে নৌকা প্রতীকে মনোনয়ন পেলেন যারা

কারাগার থেকে আসামি পালালো, ১২ কারা কর্মকর্তা বরখাস্ত

সংবাদদাতার নাম:
  • প্রকাশিত: রবিবার, আগস্ট ৯, ২০২০
  • 20 দেখা হয়েছে:

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগার থেকে যাবজ্জীবন সাজাপ্রাপ্ত এক কয়েদি পালিয়ে যাওয়ার ঘটনায় ১২ জন কারা কর্মকর্তা ও কারারক্ষীকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। শুক্রবার (৭ আগস্ট) বিকালে গাজীপুর মেট্রোপলিটন (জিএমপি) কোনাবাড়ি থানায় অভিযোগ দায়ের করেছে কারা কর্তৃপক্ষ।

রবিবার (৯ আগস্ট) কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগার-২ এর সিনিয়র সুপার জাহানারা বেগম জানান, সাতক্ষীরার শ্যামনগর উপজেলার আবাদ চন্ডীপুর এলাকার আবু বকর সিদ্দিক (৩৪) ২০১১ সালের ১৪ জুন থেকে এ কারাগারে ছিলেন। শ্যামনগর থানার একটি হত্যা মামলায় মৃত্যুদণ্ডাদেশ প্রাপ্ত আসামি হিসেবে তাকে রাজশাহী কেন্দ্রীয় কারাগার থেকে কাশিমপুরের এ কারাগারে স্থানান্তর করা হয়। ২০০২ সালের ১৭ মার্চ এর একটি হত্যা মামলায় আদালত ২০০৬ সালে আবু বকরকে মৃত্যুদণ্ড দেন। আসামির আপিলের পরিপ্রেক্ষিতে আদালত ২০১২ সালের ২৭ জুলাই সাজা কমিয়ে যাবজ্জীবন (৩০ বছর) সশ্রম কারাদণ্ড দেন।

এর আগে গত বৃহস্পতিবার (৬ আগস্ট) সন্ধ্যায় লকআপের সময় বন্দিদের গণনাকালে তাকে পাওয়া যায়নি। এরপর থেকে সে নিখোঁজ। এ ঘটনায় কারাগারের পক্ষ থেকে বিকালে জিএমপি’র কোনাবাড়ি থানায় একটি মামলা করা হয়েছে।

কারাগার সূত্রে জানা যায়, এর আগেও কয়েদি আবু বকর পালানোর চেষ্টা করেছিলেন। ২০১৫ সালের ১৩ মে কারাগারের সেল এলাকার একটি সেপটিক ট্যাংকির ভেতরে লুকিয়ে ছিলেন তিনি। পরদিন তাকে উদ্ধার করা হয়। এ ঘটনার পর তাকে কিছুদিন শিকল পরিয়ে রাখা হতো। এতে আবু বকর কিছুটা মানসিক বিকারগ্রস্ত হয়ে পড়েন। পরে তাকে শিকল মুক্ত করা হয়। কারা চত্বরে তিনি অন্যবন্দিদের সঙ্গে কাজ-কর্ম করতেন। তবে মানবিক কারণে তাকে কাজের জন্য চাপ দেয়া হতো না।

গত বৃহস্পতিবারও কারাভ্যন্তরে অন্যদের সঙ্গে ছিলেন আবু বকর। সন্ধ্যায় লকআপের সময় গননাকালে তাকে পাওয়া যায়নি। পরে কারাগারের ৬টি ভবনের ২৪টি কক্ষে তার খোঁজ না পেয়ে বন্দিদের রুলকল করে আবু বকরের নিখোঁজ থাকার বিষয়টি নিশ্চিত হন। তাকে খোঁজা হচ্ছে। তবে শুক্রবার বিকাল পর্যন্ত তার সন্ধান পাওয়া যায়নি। ধারণা করা হচ্ছে তিনি কারাগার থেকে কৌশলে পালিয়ে গেছেন।

কারাগারের সিনিয়র সুপার জাহানারা বেগম ব্রেকিংনিউজকে জানান, কারাগার থেকে কয়েদি নিখোঁজ হওয়ার এ ঘটনায় দায়িত্বে অবহেলার কারণে সংশ্লিষ্ট ১২ কারা কর্মকর্তা ও কারারক্ষীকে সাময়িক বরখাস্ত করা হয়েছে। তাদের বিরুদ্ধে বিভাগীয় আইনগত ব্যবস্থা নেয়া হচ্ছে।

কারা উপ-মহাপরিদর্শক (ডিআইজি) মোহাম্মদ তৌহিদুল ইসলাম ব্রেকিংনিউজকে জানান, কাশিমপুর কেন্দ্রীয় কারাগার-২ থেকে কয়েদি বকর সিদ্দিক নিখোঁজ হয়েছে। তার সন্ধান করা হচ্ছে। এ ব্যাপারে আইনগত ব্যবস্থা প্রক্রিয়াধীন রয়েছে।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরো সংবাদ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। © All rights reserved © 2020 ABCBanglaNews24
Theme By bogranewslive
themesba-lates1749691102