October 26, 2021, 5:22 am
তাঁজাখবর
যমুনার পাড়ে দাড়িয়ে থাকা যে দশজন নৌকায় উঠতে পারলেন বাগমারায় উন্নয়নের ধারা অব্যহত রাখতে চায় আল- মামুন বাগমারায় এক গৃহবধূ নির্যাতনের শিকার বগুড়া সদরের লাহিড়ীপাড়ায় নিহত সিএনজি চালক জাহেরের দাফন শেষে সিএনজি চালকদের মানববন্ধন সাংবাদিক নাসির উদ্দীন বালীর মৃত্যুতে শোক সভা ও দোয়া মোনাজাত অনুষ্ঠিত প্রয়াণ দিবসে কবি জীবনানন্দ দাশকে নিয়ে বগুড়ায় আলোচনা চৌহালীতে খাষপুকুরিয়ার ইউপি নির্বাচনে নৌকা’র প্রতীক প্রত্যাশী মাসুম সিকদার আদমদীঘিতে রক্তদহ বিলে অভিযানঃ ২ হাজার মিটার ভাদাই জাল জব্দ সান্তাহারে ট্রেন থেকে চোলাই মদসহ গ্রেপ্তার ১ কাজিপুরে আওয়ামীলীগের উদ্যোগে জঙ্গিবাদের বিরুদ্ধে বিক্ষোভ মিছিল

ভ্যাকসিন পেতে কতটুকু এগিয়েছে বাংলাদেশ?

সংবাদদাতার নাম:
  • প্রকাশিত: শনিবার, আগস্ট ২৯, ২০২০
  • 12 দেখা হয়েছে:

স্টাফ করেসপন্ডেন্ট

প্রায় দীর্ঘ ৭-৮ মাস ধরে চলা করোনা ভাইরাসের সংক্রমণ থেকে বাঁচতে মরিয়া বিশ্ব। এজন্য প্রয়োজন একটি কার্যকরি ভ্যাকসিন বা প্রতিষেধক। এই ভ্যাকসিন আবিষ্কারের মরিয়া চেষ্টা চলছে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সর্বশেষ র তথ্য অনুযায়ী, বিশ্বের বিভিন্ন দেশে টিকা বানানোর ১৭৩টি উদ্যোগ চলছে। এর মধ্যে কয়েকটি টিকার মানবদেহে পরীক্ষা চলছে। চীন ও রাশিয়া দুটি টিকার অনুমোদন দিলেও বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা-ডব্লিউএইচও সেটি অনুমোদন দেয়নি।

তবে আশা করা খুব শিগগিরই ভ্যাকসিন পেতে পারে বিশ্ব। এখন কার্যকর টিকা আবিষ্কারের সম্ভাবনা বাড়ার সঙ্গে সঙ্গে আলোচনায় আসছে, কিভাবে এই টিকা মানুষের কাছে পৌঁছে দেওয়া হবে।

এই আলোচনায় আছে বাংলাদেশও। সরকারের তরফ থেকে বলা হয়েছে, ভ্যাকসিন আবিষ্কারের সঙ্গে সঙ্গেই তা হাতে পাবে বাংলাদেশ। এমনও বলা হয়েছে, করোনার ভ্যাকসিন বিনা মূল্যে পাবে বাংলাদেশ।

তবে বিশেষজ্ঞরা বলছেন, এই ভ্যাকসিন পাওয়ার দৌড়ে বাংলাদেশ অনেক পিছিয়ে আছে। কেবলমাত্র গ্লোবাল অ্যালায়েন্স ফর ভ্যাকসিন অ্যান্ড ইমিউনাইজেশনসের (জিএভিআই) সদস্য হওয়ার আগ্রহ প্রকাশের মাধ্যমে সরকার বহুল কাঙ্ক্ষিত ভ্যাকসিন পাওয়ার পথে সামান্য কিছুটা অগ্রসর হয়েছে।

করোনার ভ্যাকসিন বিনামূল্যে দেওয়া হবে, নাকি উৎপাদন খরচের কিছুটা নেওয়া হবে সে বিষয়ে সিদ্ধান্ত নিতে আগামী মাসে বোর্ড মিটিংয়ে বসবে জিএভিআই। সরকারি ও বেসরকারি অংশীদারিত্বের ভিত্তিতে প্রতিষ্ঠিত এই প্রতিষ্ঠানটি কাজ করছে ‘সবার জন্য টিকা’ নিশ্চিত করতে।

বিশেষজ্ঞরা বলেছেন, এখনও কোভিড-১৯ বিষয়ক জাতীয় কারিগরি উপদেষ্টা কমিটির (এনটিএসি) সুপারিশের সঙ্গে সামঞ্জস্য রেখে গতি অর্জন করতে পারেনি সরকার। গত ১৯ আগস্ট এনটিএসি-এর ১৭তম বৈঠক অনুষ্ঠিত হয়। এ বৈঠকে ভ্যাকসিনের ক্লিনিক্যাল ট্রায়ালের তৃতীয় পর্যায়ে থাকা সংস্থা বা দেশগুলোর সঙ্গে যোগাযোগ বাড়ানোর পরামর্শ দেওয়া হয়। ট্রায়ালের তৃতীয় পর্যায়ে বাংলাদেশকে অংশ নিতেও পরামর্শ দিয়েছে এই কমিটি। যাতে করে ভ্যাকসিনের ট্রায়াল সফল হওয়ার পর বাংলাদেশ ‘গ্যারান্টি বেনিফিট’ পেতে পারে।

এনটিএসির সদস্য অধ্যাপক নজরুল ইসলাম বলেন, ‘আমরা প্রতিযোগিতায় (ভ্যাকসিন সংগ্রহের) অনেক পিছিয়ে আছি। মূল প্রশ্নটা হলো, আমরা কোনো প্রস্তুতকারকের কাছ থেকে সরাসরি ভ্যাকসিন নিতে পারব কিনা। বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থা বা জিএভিআই এর বিষয়টি আসবে পরে।’

বিশেষজ্ঞদের মতে, আগামী চার থেকে দশ মাসের মধ্যে সবার ব্যবহারের জন্য বাজারে প্রচুর পরিমাণে ভ্যাকসিন পাওয়া যেতে পারে। তবে এগুলো কতটা কার্যকর হবে বা কত দিনের জন্য কার্যকর থাকবে তা পরিষ্কার নয়।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার স্ট্র্যাটেজিক অ্যাডভাইজরি গ্রুপ অব এক্সপার্টের সদস্য অধ্যাপক ফেরদৌসী কাদরী জানান, কভিড-১৯-এর টিকার জন্য বাংলাদেশ অনেক আগ্রহ নিয়ে অনেক চেষ্টা চালাচ্ছে। এক বা একাধিক টিকা যেন আমরা পরীক্ষা করতে পারি এবং আমরা যেন টিকা পেতে পারি, সেই চেষ্টা হচ্ছে। আমি আশাবাদী, যেসব দেশ কভিড-১৯-এর টিকা প্রথম দিকে পাবে, তার মধ্যে বাংলাদেশ থাকবে।

বিশ্ব স্বাস্থ্য সংস্থার সাবেক উপদেষ্টা অধ্যাপক মুজাহেরুল হক বলেন, টিকা পাওয়ার ক্ষেত্রে বাংলাদেশের একটি কৌশল নির্ধারণ করা জরুরি। অনেক দেশের ভ্যাকসিন ট্রায়ালে ভারত, ফিলিপাইন, থাইল্যান্ডের মতো অনেক দেশ যুক্ত হয়েছে। কিন্তু বাংলাদেশ সেখানে যুক্ত হতে পারেনি। তবে ডাব্লিউএইচও সেটা আমাদের দেবে, এটা নিশ্চিত।

শেয়ার করুন

Leave a Reply

Your email address will not be published. Required fields are marked *

এ বিভাগের আরো সংবাদ
সকল প্রকাশিত/প্রচারিত কোনো সংবাদ, তথ্য, ছবি, আলোকচিত্র, রেখাচিত্র, ভিডিওচিত্র, অডিও কনটেন্ট কপিরাইট আইনে পূর্বানুমতি ছাড়া ব্যবহার করা যাবে না। © All rights reserved © 2020 ABCBanglaNews24
Theme By bogranewslive
themesba-lates1749691102